Bangla24x7 Desk : আপ কি বার ৪০০ পার কিংবা ৩৭০ এর ম্যাজিক – লোকসভা ভোটের ফলাফলের নিরিখে বিজেপিকে থামতে হয়েছে অনেক আগেই। ২৭২ ম্যাজিক ফিগার তো দূরের কথা নরেন্দ্র মোদী নেতৃত্বাধীন বিজেপির বিজয় রথ থেমে গেছে ২৪০ আসনেই। ২০১৪ এবং ২০১৯ সালে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা ছিল , যার কারণে সংসদে শক্তি প্রদর্শন করা বিজেপির পক্ষে খুব একটা কষ্টসাধ্য ছিল না। সরকার গড়তে গতকালই দিল্লিতে এনডিএ শিবিরের বৈঠক হয়। বৈঠক শেষে উঠে আসে ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টার ছবি। আসন কমলেও জাঁকজমকে কোন খামতি নয় – নমোর অভিষেকে আমন্ত্রিত ৫ দেশের রাষ্ট্রপ্রধান। দেশজুড়ে গেরুয়া ঝড় না উঠলেও এই অনুষ্ঠানের জৌলুসে কোনও খামতি রাখা হচ্ছে না।

শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট রনিল বিক্রমসিংহে, নেপালের পুষ্পকমল দাহাল, ভুটানের প্রধানমন্ত্রী শেরিং তোবগে ও মরিশাসের প্রধানমন্ত্রী প্রবিন্দ জুগুনাথ। বুধবার বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে ফোনে কথা বলেন মোদি। তখনই মুজিবকন্যাকে ভারতের আসার আমন্ত্রণ জানান মোদি। জানা গিয়েছে, শুক্রবারই দিল্লিতে পা রাখবেন হাসিনা। সংবাদ সংস্থা এএনআই সূত্রে খবর, এখনই ভারতে আসছেন না মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। তাঁর বদলে আসতে পারেন আমেরিকার জাতীয়  নিরাপত্তা উপদেষ্টা জ্যাক সুলিভান। এখন হোয়াইট হাউসে আলোচনা চলছে তাঁরই। এদিকে মোদির ‘বন্ধু’ রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন আসছেন কি না সেবিষয়েও কিছু জানা যায়নি। তাঁকেও ফোনে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন মোদি।   

টানা তৃতীয়বার প্রধানমন্ত্রীর কুরশিতে বসবেন নরেন্দ্র মোদি। আর তাঁর এই সাফল্যে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বিভিন্ন রাষ্ট্রনেতারা। তালিকায় রয়েছেন, ইটালির প্রধানমন্ত্রী জর্জিয়া মেলোনি, মালদ্বীপের ‘চিনপন্থী’ প্রেসিডেন্ট মহম্মদ মুইজ্জু, ভুটানের প্রধানমন্ত্রী শেরিং তোগবে, শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট রনিল বিক্রমসিংহে, ইজরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু ও ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন, মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন, ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী ঋষি সুনাক-সহ আরও অনেকে। সকলকেই ধন্যবাদ জানিয়েছেন নমো।  আগামিদিনে ভারতের সঙ্গে বিভিন্ন দেশের কূটনৈতিক সমীকরণ কী হয় সেদিকেই নজর সকলের।  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *