Bangla24x7 Desk : ‘ভারত জোড়ো’ যাত্রা চলাকালীন বিপত্তি। হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু কংগ্রেস নেতার। প্রাণ গেল মহারাষ্ট্র কংগ্রেসের সেবা দলের অন্যতম সাধারণ সম্পাদক কৃষ্ণকুমার পাণ্ডের। রাহুলের ‘ভারত জোড়ো’ যাত্রা সোমবার রাতে মহারাষ্ট্রে প্রবেশ করেছে। আগামী ২০ নভেম্বর পর্যন্ত মহারাষ্ট্রেই থাকার কথা রাহুলদের। আগামী ১৫ দিনে মহারাষ্ট্রের ১৫টি বিধানসভা এবং ৬টি লোকসভা কেন্দ্র দিয়ে যাবে। মহারাষ্ট্রের ভিতর ৩৮২ কিলোমিটার যাবে এই যাত্রা। যাত্রা চলাকালীন গোটা দুই জনসভাও করার কথা প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতির। কিন্তু ‘ভারত জোড়ো’ যাত্রার মহারাষ্ট্র পর্বের শুরুতেই কংগ্রেস কর্মীর প্রয়াণ দলীয় কর্মীদের ধাক্কা দিয়ে গেল।

ভারত জোড়ো যাত্রার ৬২তম দিনের শুরুতে জাতীয় পতাকা হাতে রাহুল গান্ধী , দিগ্বিজয় সিং, জয়রাম রমেশেদের সঙ্গে হাঁটছিলেন কংগ্রেস সেবা দলের এই সাধারণ সম্পাদক। বেশ কিছুক্ষণ হাঁটার পর অসুস্থ বোধ করেন তিনি। অন্য একজনের হাতে জাতীয় পতাকা দিয়ে দাঁড়িয়ে পড়েন তিনি। সেখানেই অজ্ঞান হয়ে পড়ে যান তিনি। হাসপাতাল নিয়ে যাওয়া হলে তাঁকে মৃত ঘোষণা করা হয়। আরএসএসের সদর দপ্তর নাগপুরে সংগঠন করতেন কৃষ্ণকুমার পাণ্ডে। তাঁর মৃত্যুতে নাগপুরে কংগ্রেসের সংগঠন বড়সড় ধাক্কা খেল।

কৃষ্ণকুমার পাণ্ডের প্রয়াণে শোকপ্রকাশ করেছেন রাহুল-সহ অন্য নেতারা। ভারত জোড়ো যাত্রার ক্যাম্পেই তাঁকে শেষশ্রদ্ধা জানান কংগ্রেস নেতারা। এমনিতে রাহুলের যাত্রার সঙ্গে একজন চিকিৎসক এবং অ্যাম্বুল্যান্স থাকার কথা। ভারত যাত্রীদের নিয়মিত শারীরিক পরীক্ষাও করা হয়। কিন্তু কৃষ্ণকুমার পাণ্ডে ভারত যাত্রী নন। মহারাষ্ট্র থেকেই যাত্রায় যোগ দেন বলে কংগ্রেস সূত্রের খবর। এক্ষেত্রে কংগ্রেস নেতার প্রাথমিক চিকিৎসা সঠিকভাবে হয়েছিল কিনা প্রশ্ন উঠছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *