img-2

Bangla24x7 Desk : ২০২৪ লোকসভা নির্বাচনের আগে শেষ পূর্ণাঙ্গ বাজেটে মাস্টারস্ট্রোক নির্মলা সীতারমণের। মধ্যবিত্তকে স্বস্তি দিয়ে বড় অঙ্কের করছাড়ের ঘোষণা করলেন অর্থমন্ত্রী। আয়কর ছাড়ের ঊর্ধ্বসীমা ৫ লক্ষ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৭ লক্ষ টাকা পর্যন্ত করা হল। শুধু তাই নয়, আগে করছাড়ের সর্বোচ্চ পরিমাণ যেখানে ছিল ২ লক্ষ টাকা। সেটা এবার বাড়িয়ে করা হল ৩ লক্ষ টাকা।

নির্মলার ঘোষণা অনুযায়ী, আয়কর ছাড়ের ঊর্ধ্বসীমা ৫ লক্ষ থেকে বেড়ে হল ৭ লক্ষ। আয়করের স্ল্যাবও বদলাল। ০-৩ লক্ষ পর্যন্ত আয়ে কোনও আয়কর দিতে হবে না। ৩-৬ লক্ষ আয়ে কর দিতে হবে ৫ শতাংশ। তবে এই স্ল্যাবে যারা করছাড়ের আওতায় পড়বেন, তাঁদেরও কোনও আয়কর দিতে হবে না। ৬-৯ লক্ষ আয়ে আয়কর দিতে হবে ১০ শতাংশ। ৯-১২ লক্ষ আয়ে কর ১৫ শতাংশ। ১২ থেকে ১৫ লক্ষ আয়ে কর ২০ শতাংশ।

img-3

১৫ লক্ষ টাকার বেশি আয়ে কর দিতে হবে ৩০ শতাংশ। আগে আড়াই থেকে ৫ লক্ষ টাকা করে কোনও ট্যাক্স দিতে হত না। ৫-৭.৫ লক্ষে আয়কর ছিল ১০ শতাংশ। ৭.৫-১০ লক্ষ পর্যন্ত আয়ে কর দিতে হত ১৫ শতাংশ। ১০-১২.৫ লক্ষে আয়কর ২০ শতাংশ। ১২.৫-১৫ লক্ষ আয়ে কর ছিল ৩০ শতাংশ। করকাঠামো এবং আইটি রিটার্ন ফাইল করার প্রক্রিয়ারও সরলীকরণ করেছে নির্মলার সরকার। নতুন এই করকাঠামোয় ব্যবহার করার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে করদাতাদের। কিন্তু কেউ চাইলে পুরনো রীতিতেও কর দিতে পারেন।

এদিন অর্থমন্ত্রী ঘোষণা করেছেন, আয়কর ছাড়ের আওতায় এলে ৭ লক্ষ টাকা পর্যন্ত রোজগারে কোনও করই দিতে হবে না। ৯ লক্ষ পর্যন্ত রোজগার হলে কর দিতে হবে মাত্র ৪৫ হাজার টাকা। ১৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত রোজগারে মাত্র দেড় লক্ষ টাকা কর দিতে হবে। মোবাইল ফোন এবং টিভির যন্ত্রাংশে শুল্ক কমানোর ঘোষণা করেছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী। ফলে টিভি এবং স্মার্টফোনের দাম অনেকটাই কমবে বলে আশা করা যাচ্ছে।

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *