img-2

Bangla24X7 Desk : কয়লাপাচার কাণ্ডে এ বার সিউড়ি থানার ওসি শেখ মহম্মদ আলি তলব করে জিজ্ঞাসাবাদ করছে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা সিবিআই৷ মঙ্গলবার সিবিআই-এর দু্র্নীতি দমন শাখার অফিসে ওই অফিসারকে জিজ্ঞাসাবাদ করতে শুরু করা হয়৷ মঙ্গলবার সকালের পর তিনি সিবিআই-এর দফতরে হাজিরা দেন৷ দুপুর সাড়ে চারটে পর্যন্ত এই জেরা চলছে বলেই খবর৷ তিনিকরল রাজ্য পুলিশের ইনস্পেক্টর পদ-মর্যাদার এক অফিসার৷

img-3

কী অভিযোগ এই পুলিশকর্তার বিরুদ্ধে? সিবিআই-এর তরফ থেকে অভিযোগ করা হয়েছে, কয়লা পাচারের সেফ করিডোর তৈরির কাজ করতেন তিনি৷ অবশ্যই তা অর্থের বিনিময়ে৷ অর্থাৎ আসানসোল-দুর্গাপুর থেকে বীরভূমের কয়লাখনি অঞ্চল থেকে কয়লা পাচারের সময় যাতে পাচারকারী গাড়িটি নির্দিষ্ট গন্তব্যে নির্বিঘ্নে পৌঁছে যেতে পারে, যাতে পথে পুলিশ-প্রশাসনের তরফ থেকে কোনওরকম বাধা-বিপত্তি সৃষ্টি না করা হয়, সেই বিষয়টি নিশ্চিত করতেন সিউড়ির এই পুলিশ আধিকারিক৷ সেই কারণেই কয়লা পাচারকাণ্ডে যোগ পেয়ে তাঁরে নিজাম প্যালেসে তলব করেছিল।

সিবিআই সূত্রে খবর, কয়লা পাচারের প্রধান মাথা অনুপ মাঝি, কয়লা পাচার সুষ্ঠভাবে করার জন্য বিভিন্ন মহলের মানুষকে প্রোটেকশন মানি বা নিরাপত্তাজনিত অর্থ পাঠাত৷ যেমন অনুব্রতর বিরুদ্ধেও প্রোটেকশন মানি নেওয়ারও অভিযোগ রয়েছে৷ তিনি যখন বীরভূমের বিভিন্ন থানায় তিনি কর্মরত ছিলেন, তখন এই কয়লা পাচারের কাজে তিনি জড়িয়ে পড়েন তিনি৷

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *